বোরুজেরদি: সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট নির্বাচন নিতান্তই আনুষ্ঠানিকতা ছিল না

সিরিয়ার সাম্প্রতিক প্রেসিডেন্ট নির্বাচন নিতান্তই আনুষ্ঠানিকতা ছিল না বলে মন্তব্য করেছেন ইরানের জাতীয় নিরাপত্তা ও পররাষ্ট্রনীতি বিষয়ক সংসদীয় কমিটির প্রধান আলাউদ্দিন বোরুজেরদি। তিনি পশ্চিমা গণমাধ্যমের ভিত্তিহীন দাবি নাকচ করে বলেন, নির্বাচনে সিরিয়ার জনগ

বোরুজেরদি: সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট নির্বাচন নিতান্তই আনুষ্ঠানিকতা ছিল না
সিরিয়ার সাম্প্রতিক প্রেসিডেন্ট নির্বাচন নিতান্তই আনুষ্ঠানিকতা ছিল না বলে মন্তব্য করেছেন ইরানের জাতীয় নিরাপত্তা ও পররাষ্ট্রনীতি বিষয়ক সংসদীয় কমিটির প্রধান আলাউদ্দিন বোরুজেরদি। তিনি পশ্চিমা গণমাধ্যমের ভিত্তিহীন দাবি নাকচ করে বলেন, নির্বাচনে সিরিয়ার জনগণের অংশগ্রহণ ছিল স্বতঃস্ফূর্ত।

গত সন্ধ্যায় ইরানের চ্যানেল টু-কে দেয়া সাক্ষাৎকারে বোরুজেরদি বলেন, সিরিয়ার স্পিকারের আমন্ত্রণে তিনি প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে তিন প্রার্থীর প্রতিদ্বন্দ্বিতা পর্যবেক্ষণ করতে দামেস্ক গিয়েছিলেন। সিরিয়ার চলমান সংকটের রাজনৈতিক সমাধানের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, “আমি নিশ্চিত যে, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ফলাফলের একটা ইতিবাচক প্রভাব পড়বে সিরিয়ার ওপর এবং সমস্যা দূর হবে।”

পশ্চিমারা এ নির্বাচনকে বৈধতা দিচ্ছে না কেন- এমন প্রশ্নের জবাবে ইরানের এ সিনিয়র এ সংসদ সদস্য বলেন, আমেরিকা ও তার পশ্চিমা মিত্ররা একমাত্র নিজেদের স্বার্থকে গুরুত্ব দেয়।

বোরুজেরদি বলেন, সিরিয়া ছিল একটা শান্তিপূর্ণ দেশ এবং সব সম্প্রদায়ের লোকজন শান্তিতে মিলিমিশে বসবাস করছিল কিন্তু ওই এলাকায় ক্ষমতার ভারসাম্য নষ্ট হয়ে গেলে আমেরিকা ক্ষমতার পাল্লা তার দিকে নিতে চেষ্টা করে এবং সিরিয়ায় যুদ্ধ লাগিয়ে দিয়েছে।

আলাউদ্দিন বোরুজেরদি বলেন, সিরিয়ায় গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা এবং প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদের বৈধতায় ভয় পায় আমেরিকা। তবে, পশ্চিমারা সিরিয়ার এবারের নির্বাচনকে অস্বীকার করতে পারে না।
সূত্রঃ রেডিও তেহরান