সয়া প্রোটিনে ওজন কমে?

ওজন ও রক্তে চর্বি কমাতে ইদানীং অনেকেই সয়া প্রোটিনের দিকে ঝুঁকছেন। সয়া খেলে ওজন কমে—এমন একটা ধারণা রয়েছে। কিন্তু আসলেই কি ওজন কমে? সত্যি বলতে কি, এ নিয়ে এখনো বিস্তর গবেষণা চলছে। একথা ঠিক, সয়া আমিষ ও আঁশের এক চমৎকার সমন্বয়।

সয়া প্রোটিনে ওজন কমে?
ওজন ও রক্তে চর্বি কমাতে ইদানীং অনেকেই সয়া প্রোটিনের দিকে ঝুঁকছেন। সয়া খেলে ওজন কমে—এমন একটা ধারণা রয়েছে। কিন্তু আসলেই কি ওজন কমে? সত্যি বলতে কি, এ নিয়ে এখনো বিস্তর গবেষণা চলছে। একথা ঠিক, সয়া আমিষ ও আঁশের এক চমৎকার সমন্বয়।
সয়া মিল্কে প্রচুর আমিষ থাকলেও গরুর দুধের তুলনায় কোলেস্টেরল নেই বললেই চলে। তাই এই দুধ খেলে কোলেস্টেরল বাড়ে না। প্রচুর আঁশ থাকায় সয়ার তৈরি খাবারে ওজন বাড়ার আশঙ্কাও কম। কিন্তু সয়া খেলে ওজন বা চর্বি কমে এমন তথ্যের পক্ষে জুতসই প্রমাণ এখনো মেলেনি। তার পরও প্রচুর আমিষ কিন্তু খুবই কম কোলেস্টেরল ও সম্পৃক্ত চর্বি থাকার কারণে সম্প্রতি ইউএস ফুড অ্যান্ড ড্রাগ অ্যাডমিনিস্ট্রেশন দৈনিক ২৫ গ্রাম সয়া প্রোটিন গ্রহণ করতে পরামর্শ দিয়েছে। তবে এতে হূদেরাগ বা অন্যান্য রোগের ঝুঁকি কমে কি না, সে সম্পর্কে নিশ্চিত করে কিছু বলা হয়নি।
ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব হেলথ (এনআইএইচ) বলছে, শুধু সয়া প্রোটিন, সয়া ময়দা, গোটা সয়া বীজের ক্ষেত্রে এ কথা খাটে। বাজারে যেসব সয়া সম্পূরক, ট্যাবলেট বা ক্যাপসুল প্রচলিত, তাদের বেশির ভাগেই কেবল সয়া আইসোফ্লেভনটাই আছে, অন্যান্য উপাদান নেই বললেই চলে। তবে বিশ্বজুড়ে মানবস্বাস্থ্যের ওপর সয়ার প্রভাব নিয়ে গবেষণা চলছে, শেষ কথাটি জানতে হলে আরও কিছুদিন অপেক্ষা করতে হবে।
সূত্র: এনআইএইচ।